আড়িয়ল বিলে ভূমি দখলের কোনো নির্দেশনা পাইনি : ভূমি প্রতিমন্ত্রী

আড়িয়ল বিলে ভূমি দখলের কোনো নির্দেশনা এখনো পাননি বলে জানিয়েছেন ভূমি প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান। তিনি বলেন, ‘আড়িয়ল বিলে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর নির্মাণের জন্য ভূমি অধিগ্রহণের কোনো নির্দেশনা আমি পাইনি। সবকিছু চূড়ান্ত হলেই এ ধরনের নির্দেশ আসে। অথচ কিছু সংখ্যক লোক আন্দোলনে নেমেছে। কিছু পেতে হলে কিছু ত্যাগ করতে হয়। একাত্তর সালে ৩০ লাখ লোক জীবন না দিলে আমরা স্বাধীনতা পেতাম না।’

মঙ্গলবার জাতীয় প্রেসকাবে ‘বিশ্ব জলাভূমি দিবস’ উপলক্ষে আয়োজিত সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

ভূমি প্রতিমন্ত্রী ত্যাগের বিনিময়ে কিছু পাওয়ার ব্যাপারে ফুলবাড়ির কয়লা খনির প্রসঙ্গ টেনে বলেন, ‘উম্মুক্ত পদ্ধতিতে উত্তোলন করা হলে যে পরিমাণ কয়লা পাওয়া যাবে তা দিয়ে বছরে ৫ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করা সম্ভব। এই কয়লা দিয়ে ৩৫ বছর চলা যাবে। যদি কিছু মানুষ ত্যাগ স্বীকার করে, তাহলে এই পরিমাণ বিদ্যুৎ উৎপাদিত হবে। কারণ ধ্বংস ছাড়া কিছু সৃষ্টি হয় না।’

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘তবে সরকার জোর করে কিছু করবে না। বুঝে-শুনেই সবকিছু করবে।’

বিশ্ব শান্তিমিশন ও টিএমএসএস (ঠেঙ্গামারা মহিলা সবুজ সংঘ) এর উদ্যোগে এই সেমিনারের আয়োজন করা হয়।

বিশ্ব জলাভূমি দিবসের এবারের প্রতিপাদ্য ‘পানি ও জলাভূমির জন্য বন’। এতে আলোচনায় অংশ নেন প্রকৌশলী ম. ইনামুল হক, ভয়েস অব আমেরিকা বাংলা বিভাগের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রোকেয়া হায়দার, বিশ্ব শান্তি মিশনের উপদেষ্টা ডা. আশীষ শংকর নিয়োগী, টিএমএসএসের পরিচালক জাকির হোসেন প্রমুখ।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

[ad#bottom]

Leave a Reply