মাওয়া-কাওড়াকান্দি-চরজানাজাত নৌরুটে নাব্যতা সংকট

মাওয়া-কাওড়াকান্দি-চরজানাজাত নৌরুটে ভয়াবহ নাব্যতা সংকট দেখা দিয়েছে। গত এক সপ্তা ধরে পদ্মায় পানি হ্রাস অব্যাহত থাকায় এ রুটে ফেরিসহ সব ধরনের নৌযান ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছে। দ্রুত ড্রেজিং কাজ শুরু করা না হলে যেকোন সময় নৌরুটে ফেরি চলাচল বন্ধ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। সোমবার বিআইডব্লিউটিসির কর্মকর্তরা ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের বিষয়টি অবহিত করেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, চলতি শুষ্ক মৌসুম শেষে মাওয়া-চরজানাজাত নৌরুটের দুইটি স্থানে পানির গভীরতা কমে যাওয়ায় ফেরি চলাচল ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। সাড়ে ১৬ কিলোমিটার এ নৌরুটের লৌহজং টার্নিং পয়েন্টে ৪শ ফুট এলাকায় ৭ থেকে ৮ ফুট পানি রয়েছে। ফলে ওই স্থান দিয়ে নদীর তলদেশ ঘেঁষে ফেরি চলাচল করছে। এছাড়া পদ্মার মাওয়া পয়েন্টে পানি হ্রাস পেয়েছে ৫৮ সেন্টিমিটার। প্রতিদিনই গড়ে ৫ সেন্টিমিটার করে পানি হ্রাস পাচ্ছে বলে এক কর্মকর্তা জানান। ওই কর্মকর্তা আরো জানান, গত শনিবার সার্ভে ওয়ার্কবোট দিয়ে চ্যানেল পর্যবেক্ষণ করা হয়েছে। এ সময় চ্যানেলের লৌহজং টার্নিং পয়েন্ট ছাড়া বাকি সকল স্থানে ৩ মিটার পানি পাওয়া গেছে। রো রো ফেরি চালক ইসমাইল হোসেন জানান, নৌরুটে স্বাভাবিক ফেরি চলাচলের জন্য প্রয়োজনীয় পানি নেই। তাই দ্রুত ড্রেজিং করা না হলে ফেরি চলাচল বন্ধ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে বলে জানান তিনি।

[ad#bottom]

Leave a Reply