মুন্সিগঞ্জে ইউপি নির্বাচনের নানা দিক নিয়ে আলোচনা

মুন্সিগঞ্জ জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে আচরণবিধি লঙ্ঘন, অবৈধ অস্ত্রের ব্যবহার ও পেশিশক্তির প্রভাবসহ নানা বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। গতকাল রোববার জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এই সভা হয়। জেলার চারজন সাংসদের কেউই সভায় উপস্থিত ছিলেন না।

কাল মঙ্গলবার থেকে মুন্সিগঞ্জে ইউপি নির্বাচন শুরু হতে যাচ্ছে।

শুরুতে মুন্সিগঞ্জের ছয় উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তারা (ইউএনও) ইউপি নির্বাচনের প্রস্তুতি সম্পর্কে তাঁদের বক্তব্য তুলে ধরেন। সিরাজদিখানের ইউএনও দাউদ-উর রহমান বলেন, কিছু ঘটনা ছাড়া সিরাজদিখানের নির্বাচন-পূর্ব পরিস্থিতি ভালো। শ্রীনগর, লৌহজং, টঙ্গিবাড়ী ও সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তারাও নিজ নিজ উপজেলায় নির্বাচনী পরিস্থিতি ভালো বলে উল্লেখ করেন।

জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জামাল হোসেন নির্বাচন সামনে রেখে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারে অভিযান চালাতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে পরামর্শ দেন।

মিরকাদিম পৌরসভার মেয়র মো. শাহীদুল ইসলাম শাহীন বলেন, মিরকাদিম পূর্বপাড়া গ্রামে জুয়া খেলা হয়। কিন্তু জুয়াড়িদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে না। তিনি বলেন, ‘যদি কোনো ব্যবস্থা না নেওয়া হয়, তাহলে আমার পক্ষে আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় আসা সম্ভব হবে না।’

আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভা সূত্র জানায়, গত এপ্রিল মাসে জেলায় চারটি খুনের ঘটনা ঘটেছে। নারী ও শিশু নির্যাতনের ঘটনা ঘটে ১০টি। মাদক-সংক্রান্ত ঘটনায় মামলা হয়েছে ৫৫টি।

Leave a Reply