গজারিয়ায় পৃথক সহিংসতায় আহত ১২

মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া উপজেলায় পৃথক নির্বাচনী সহিংসতায় রোববার ১২ জন আহত হয়েছে। গজারিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আরজু মিয়া বাংলানিউজকে জানান, শনিবার দিবাগত রাত ১০টার দিকে বালুয়াকান্দি ইউনিয়নের বড় রায়পুরা গ্রামে পরাজিত চেয়ারম্যন প্রার্থী বশিরের সমর্থকরা অপর পরাজিত চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মান্নান সরকারের গাড়ি ভাঙচুর করে।

এঘটনার জের ধরে আব্দুল মান্নানের সমর্থকরা বশিরের বাড়িতে হামলা করতে গেলে সংঘর্ষ শুরু হয়।

অন্যদিকে, গজারিয়া ইউনিয়নের নয়ানগর গ্রামে বিজয়ী চেয়ারম্যান প্রার্থী সফিউল্লাহ শফি ও পরাজিত প্রার্থী আহসান উল্লাহর সমর্থকদের মধ্যে রোববার দুপুর ১২টার দিকে সংঘর্ষ হয়েছে। এতে উভয়পক্ষের ৪ জন আহত হয়।

আহতদের গজারিয়া ও ভবেরচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চিকিৎসা দেওয়া হয়।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
———————————

গজারিয়ায় নির্বাচনোত্তর সংঘর্ষে আহত ১৪

মীর নাসির উদ্দিন উজ্জ্বল : গজারিয়ায় উপজেলার গজারিয়া ইউনিয়নের নয়ানগর ও বালুয়াকান্দি ইউনিয়নের বড় রায়পুরা এবং ইমামপুর ইউনিয়নের বাঘাইয়াকান্দি গ্রামে নির্বাচনোত্তর পৃথক সংঘর্ষে ১৪ ব্যক্তি আহত হয়েছে। আহতদের বিভিন্ন হাসতাল ও ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়েছে। ভোট গ্রহনের পর শনিবার রাতে এবং রবিবার বিকালে এই সংঘর্ষ বাধে।

গজারিয়া থানার ওসি আরজু মিয়া রবিবার রাতে জানান, রবিবার বিকালে ইমামপুর ইউনিয়নের বাঘাইয়াকান্দি গ্রামে বিজয়ী ও পরাজিত মেম্বার প্রার্থীর মধ্যে সংঘর্ষে ৫ ব্যক্তি আহত হয়। দুপুরে গজারিয়া ইউনিয়নের নয়ানগর গ্রামে বিজয়ী চেয়ারম্যান শফিউলস্নাহ ও পরাজিত চেয়ারম্যান প্রার্থী আহসানউলস্নাহ’র সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। শনিবার রাতে বালুয়াকান্দি ইউনিয়নের বড় রায়পুরা গ্রামে পরাজিত দু’ চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মান্নান ও মো. বছিরের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে আহত হয় ৫ ব্যক্তি। এই সময় ভাংচুর হয় চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মান্নানের গাড়ি । এসব ঘটনায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে। এখনও কেউ গ্রেফতার হয়নি। এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

মুন্সীগঞ্জ নিউজ

Leave a Reply