মুন্সিগঞ্জে ইলিশের কৃত্রিম সংকট

বর্ষা মৌসুমে পদ্মা নদীতে ইলিশের সংকট থাকায় মুন্সিগঞ্জের বাজারগুলোতে অধিক দামে বিক্রি হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এছাড়াও এক শ্রেণীর ব্যবসায়ী বাজারে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করে মাছ সরবরাহ করছে সিরাজদিখান, শ্রীনগর ও লৌহজং উপশহরে বিত্তবানদের ঘরে। শৌখিন ইলিশ ভোক্তারা এজেন্টের কাছে অগ্রিম টাকাসহ অর্ডার দিলে ৩-৪ দিনের মধ্যে ছুটে আসছে প্যাকেটবন্দী ইলিশ।

জানা যায়, প্রতিটি মাছের বাজার ও আড়তে রয়েছে ইলিশের বিশেষ এজেন্ট। তারা চাঁদপুর ও ভোলা থেকে অর্ডার অনুযায়ী সাপ্লাই নিশ্চিত করে। মাছের আড়তদাররা জানান, ইলিশের মোকামে পর্যাপ্ত ইলিশের সরবরাহ থাকলেও স্থানীয় বাজারে তা আসছে না। ট্রাক বোঝাই করে কিংবা বাক্সবন্দী হয়ে ইলিশ চলে যাচ্ছে দূর গন্তব্যে। স্থানীয় বাজারগুলোতে আসছে গ্রেড বহির্ভূত জাটকা ইলিশ। তবে এর বেশিরভাগ চলে যাচ্ছে সীমান্তের ওপারে।

জানা যায়, এক সময় মেঘনা অববাহিকা অতিক্রম করে মুন্সিগঞ্জের পদ্মা নদীতে ছুটে আসতো ইলিশের ঝাঁক। জেলেদের জালেও ইলিশ ধরা পড়তো প্রচুর পরিমাণে। মুন্সিগঞ্জের প্রতিটি বাজারেও ইলিশ সরবরাহ হতো তরতাজা অবস্থায়। কিন্তু এখন মাঝেমধ্যে জাটকা ধরা দেয় জালে। তাও বাজারে বিক্রি করা হয় চড়া দামে।

Leave a Reply