পানাম এলাকায় স্কুল ছাত্রী অপহরণের অভিযোগ

মুন্সীগঞ্জ সদরের পানাম এলাকায় নবম শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রীকে অপহরণ করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। রোববার সকালে স্কুলে যাওয়ার পথে রাস্তা থেকে ছাত্রী অপহৃত হয় বলে জানিয়েছে পুলিশ। অপহৃত ছাত্রীর নাম ঋতু বেগম (১৫)। সে আব্দুল্লাহপুর বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী। রোববার একদল বখাটে সিএনজিযোগে এসে ওই স্কুল ছাত্রীকে তুলে নিয়ে গেছে বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়।

এ ঘটনায় রোববার দুপুরে স্কুল ছাত্রীর মা সালমা বেগম বাদি হয়ে পানাম এলাকার মো: রাব্বিসহ ৫ বখাটের বিরুদ্ধে সদর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।

সদর থানার ওসি শহীদুল ইসলাম বাংলানিউজকে জানান, পানাম এলাকার বখাটে মো: রাব্বি বেশ কয়েক দিন আগে স্কুল ছাত্রী ঋতু বেগমকে প্রেমের প্রস্তাব দেয়। এতে স্কুল সে রাজী না হওয়ায় বখাটে রাব্বি ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে। এরই জের ধরে রোববার রাব্বি তার বন্ধুদের নিয়ে জোরপূর্বক ওই স্কুল ছাত্রীকে অপহরণ করে।

অপহৃত স্কুল ছাত্রীকে উদ্ধারের চেষ্টা চলছে বলেও তিনি জানান।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

———————————–

মুন্সীগঞ্জে স্কুল ছাত্রী অপহরন

কাজী দীপু মুন্সীগঞ্জ থেকে : মুন্সীগঞ্জ সদরের পানাম এলাকায় গতকাল রোববার ঋতু বেগম (১৫) নামের এক স্কুল ছাত্রীকে অপহরন করেছে একদল বখাটে। এ ঘটনায় স্কুল ছাত্রীর মা সালমা বেগম বাদী হয়ে মো: রাব্বিসহ ৫ বখাটেকে আসামী করে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।

নিজ বাড়ি থেকে সকাল ৯ টার দিকে আব্দুল্লাপুর বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী ঋতু স্কুলে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে রাব্বিসহ ৫ বখাটে স্কুল ছাত্রীকে সিএনজিযোগে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে যায়।

পুলিশ জানায়, পানাম এলাকার টুটুল দেওয়ানের মেয়ে স্কুল ছাত্রী ঋতু বেগমকে একই এলাকার মো: রাব্বি নামের এক যুবক বেশ কয়েক দিন আগে প্রেমের প্রস্তাব দিলে স্কুল ছাত্রী তা প্রত্যাখান করে।

———————————–

Leave a Reply