পরকীয়া প্রেমের কারণে ঘর ছেড়েছে প্রবাসীর স্ত্রী

টঙ্গীবাড়ী থেকে মোজাফফর হোসেনঃ মুন্সীগঞ্জের টঙ্গীবাড়ী উপজেলার কামার খাড়া ইউনিয়নের বেশনাল গ্রামের কুয়েত প্রবাসী দেলোয়ার হোসেনের স্ত্রী পরকীয়ার টানে ঘর ছাড়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় টঙ্গীবাড়ী থানায় ৫জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। স্থায়ী সূত্রে জানাগেছে, উপজেলার বেশনাল গ্রামের ইদ্রিস হাওলাদার এর ছেলে কুয়েত প্রবাসী দেলোয়ার হোসেন এর সাথে একই উপজেলার পাশ্ববর্তী পূরা গ্রামের শারমিন আক্তার এর সাথে ১২/১২/০৯ইং তারিখে ইসলামী শরিয়ত মোতাবেক বিবাহ হয়। বিয়ের পর তাদের ঘরে একটি পুত্র সন্তান জন্ম নেয়। বিয়ের কিছুদিন স্বামী দেলোয়ার হোসেন পূনরায় কুয়েত চলে যায়। বিদেশ যাওয়ার পরে শারমিন আক্তার পরকীয়া প্রেম গভীর ভাবে জড়িয়ে পরে। অতপর কাউকে কিছু না জানিয়ে গত ২৫/০৮/১১ইং তারিখে পালিয়ে যায়।

এ ব্যাপারে ছেলের পিতা বাদি হয়ে ৫জনকে আসামী করে টঙ্গীবাড়ী থানায় মামলা দায়ের করে। ছেলের বাবা ইদ্রিস হাওলাদার জানান, আমার ছেলে বিদেশে যাওয়ার পর থেকেই আমার গৃহ বধু সংসারের প্রতি অমনযোগী হয়ে পরে। আমার ছেলের পাঠানো টাকা ও জিনিস পত্র আলমারিতে রাখা ১ লক্ষ টাকা ও স্বণের চেইন, হাতের বালা সহ মোট ৫ ভরি স্বর্ণ সহ প্রায় ৭ লক্ষ টাকার মালামাল নিয়ে পালিয়ে যায়। তাকে খুজে বড়িতে ফিরিয়ে আনতে চাইলে তিনি আমাকে অপমান করে তাড়িয়ে দেয় এবং মামলা তুলে নেওয়ার জন্য আসামী পক্ষ মোবাইলের মাধ্যমে বিভিন্ন ধরনের হুমকি ধামকি দিচ্ছে। কামারখাড়া ইউপি চেয়ারম্যান আঃ জলিল শিকদার জানান, এ ব্যাপারে পরিষদে কয়েকবার শালিসি বসা হয়েছিল। কিন্তু কোন সমাধানে আসেনি। বাদী ইদ্রিস হাওলাদার প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কমনা করে।

Leave a Reply