অপহরণের ৮দিন পর বালুর টোল আদায়কারীর লাশ উদ্ধার

মোহাম্মদ সেলিম, মুন্সীগঞ্জ থেকে : গত ১৫ই আক্টোবর সংঘর্ষের সময় অপহৃত বালুর টোল আদায়কারী মো. জামাল হোসেনের(৪০) লাশ আটদিন পর মেঘনা থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। মুন্সীগঞ্জের পার্শ্ববর্তী নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলার সম্ভুপুরার কাছে মেঘনায় ভাসমান অবস্থায় দেখতে পেয়ে রবিবার সন্ধ্যায় আশপাশের লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। নিহতের মাথায় মারত্মক আঘাত রয়েছে। পুলিশের ধারনা অপহরণের পর হত্যা করে মেঘনায় ফেলে দেয়া হয়।

মুক্তারপুর নৌপুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. মিজানুর রহমান জানান, সদর উপজেলার মোল্ল¬ারচরের কাছে মেঘনা নদীতে বালু মহলের টোল আদায় নিয়ে সংঘর্ষের সময় প্রতিপক্ষরা বাল্কহেটে করে জামাল হোসেনকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। খালি বাল্কহেটটি আটক করে মুক্তারপুর নৌ ফাঁড়ির পাশে রাখা হয়েছে। তবে মালিকের সন্ধান পাওয়া যায়নি। এই বাল্কহেট বালু ভর্তি করতে মেঘনায় যাওয়ার পথে টোল কাটা নিয়ে সংঘর্ষ বাধে। পরে বালু না নিয়েই টোল আদায়কারীরা জামাল হোসেনকে অপহরণ করে। ‘মামা ভাগ্নে এন্টার প্রাইজ-৩’ নামের বাল্কহেট (বালু বহনকারী বিশেষ জাহাজ) গজারিয়া উপজেলার মেঘনা সেতুর কাছ থেকে পুলিশ আটক করলেও জামালের খোঁজ মিলছিলনা। মুন্সীগঞ্জ শহরের উত্তর ইসলামপুর গ্রামের ফুল চাঁন মাদবের পুত্র জামালের পরিবারে এখন কান্নার রোল। তার নববিবাহিত স্ত্রী মুর্ছা যাচ্ছে বার বার।

নিখোঁজ হওয়ার দিন রাতেই এ ব্যাপারে মুন্সীগঞ্জ থানায় মামলা হয়েছে। তবে এখনও কেউ গ্রেফতার হয়নি।

মুন্সিগঞ্জ নিউজ

Leave a Reply