মুন্সীগঞ্জে বাস চাপায় কিশোর নিহত : বাসে আগুন

মুন্সীগঞ্জ শহরের কৃষি ব্যাংক মোড়ে যাত্রী বোঝাই বাস চাপায় বুধবার সকালে মো.শরিফ (১২) নামের এক কিশোর নিহত হয়েছে। এ সময় সে সাইকেল চালিয়ে শহরের সুপার মার্কেটের দিকে আসছিল। বিপরীতমুখো ঢাকাগামী আন্তঃজেলা পরিবহন মালিক সমিতির একটি বাস (গাজীপুর-জ-০৪-০৩০৯) রংসাইডে চালাতে গিয়ে সাইকেল আরোহী শরিফকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই সে মারা যায়। এসময় বিুদ্ধ জনতা বাসটিতে আগুন ধরিয়ে দেয়। চালককে পুলিশে দিয়েছে জনতা। স্থানীয়রা রাস্তা অবরোধ করে রাখে। খবর পেয়ে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পরে ফায়ার সার্ভিসের লোকজন এসে বাসের আগুন নেভায়। সদর থানার এস.আই. ওবায়দুল জানান, লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। বাসের চালককে আটক করা হয়েছে। ভাংচুর করা বাসটি পুলিশ হেফাজতে আছে। নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, ৫ ভাইয়ের মধ্যে শরিফ ছিল ৪র্থ। তার বাবা ছমির মিয়া কয়েক বছর আগে মারা যায়। অভাবের সংসার সামাল দিতে পড়াশুনা বাদ দিয়ে লঞ্চে ফেরি করে পরিবারের খরচ বহন করছিল শরিফ। ঘটনার পর শরিফের বাড়ি শোকের মাতম শুরু হয়।

বাংলা ২৪ বিডি নিউজ
=======================

মুন্সীগঞ্জে বাস চাপায় কিশোর নিহত

কাজী দীপু: মুন্সীগঞ্জ শহরের কৃষি ব্যাংক এলাকায় বুধবার সকাল ৭টার দিকে বাস চাপায় এক কিশোর নিহত হয়েছে। নিহত শরিফ হোসন (১২) শহরের নয়াগাঁও এলাকার মৃত ছমিরউদ্দিনের ছেলে বলে জানা গেছে। এসময় উপস্থিত পথচারীরা ঘাতক বাসটিকে আটকের পর ভাংচুর করে আগুন ধরিয়ে দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, শহরের বাসস্ট্যান্ড এলাকা থেকে ঢাকাগামী ঝিলিক পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাস কৃষি ব্যাংক এলাকায় বিপরীত দিক থেকে আসা এক সাইকেল আরোহীকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই সাইকেল আরোহী শরিফ মারা যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সীগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

মুন্সীগঞ্জ সদর থানা উপ-পরিদর্শক (এসআই) মোশারফ হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে বাংলানিউজকে জানান, ঘাতক বাসের চালককে আটক করা হয়েছে। ঘটনার সময় বাসের হেলপার গাড়ি চালাচ্ছিলেন।

তিনি আরও জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

Leave a Reply