শিল্পকলা থেকে ইদ্রাকপুর পর্যন্ত পদযাত্রা

পুরাকীর্তি সংরক্ষন ও পাচার প্রতিরোধে
“নিজের সম্পদ নিজে রক্ষা কর, অমূল্য রত্ম সে-হোক ছোট বড়”-শ্লোগানকে সামনে রেখে দেশের পুরাকীর্তি সংরক্ষন ও পাচার প্রতিরোধে শনিবার সকালে শহরের জেলা শিল্পকলা একাডেমী থেকে মোঘল আমলের পুরাকীর্তি ইদ্রাকপুর দূর্গ পর্যন্ত প্রতীকী পদযাত্রা করা হয়েছে। এ সময় জেলা শহরের বিভিন্ন স্কুল-কলেজের ২ শতাধিক শিক্ষার্থী মুন্সীগঞ্জ-বিক্রমপুরের পুরাকীর্তি ও সাংস্কৃতিক সম্পদ সংরক্ষনের শপথ করেছেন। বঙ্গীয় শিল্পকলা চর্চার আর্ন্তজাতিক কেন্দ্র আয়োজিত সাংস্কৃতিক সত্যাগ্রহ ও সাংস্কৃতিক সম্পদ সংরক্ষনে নাগরিক উদ্যোগ-শীর্ষক এ পদযাত্রা বের করা হয় সকাল ১০ টায়। পদযাত্রাটি শহরের পুরাতন কাচারী এলাকার জেলা শিল্পকলা একাডেমী প্রাঙ্গন থেকে বের হয়ে শহরের জুবলী রোড প্রদক্ষিন করে শহরের মধ্য কোর্টগাঁও এলাকায় অবস্থিত মোঘল সাম্রাজ্যের পুরাকীর্তি ইদ্রাকপুর দূর্গে গিয়ে শেষ হয়।

পরে শিল্পকলার অডিটোরিয়ামে আয়োজিত এক সেমিনারে বঙ্গীয় শিল্পকলা চর্চার আন্তর্জাতিক কেন্দ্রের সভাপতি ড. মো: এনামূল হক সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন- প্রখ্যাত পটচিত্র শিল্পী শম্ভু আচার্য্য, জেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো: জামাল হোসেন, কামাল উদ্দিন আহম্মেদ, জেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি এটিএম দেলোয়ার হোসেন, শিক্ষক নিতাই চন্দ্র দাস প্রমুখ। এ সময় সেখানে স্কুল-কলেজের ২ শতাধিক শিক্ষার্থীকে সাংস্কৃতিক সম্পদ সংরক্ষনে শপথ বাক্য পাঠ করান আয়োজক সংগঠনের সভাপতি ড. মো: এনামুল হক। এদিকে, সাংস্কৃতিক সত্যাগ্রহ বিষয়ক সেমিনার ও পদযাত্রায় পাট ও বস্ত্র মন্ত্রী আব্দুল লতিফ সিদ্দিকীর উপস্থিত থাকার কথা থাকলেও তিনি আসেননি।

বাংলা ২৪ বিডি নিউজ

Leave a Reply