মুন্সীগঞ্জে প্রিয় পোশাক ‘হিমু’

প্রয়াত জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদের সাহিত্যকর্মের এক ব্যতিক্রমী চরিত্র ‘হিমু’র প্রিয় হলুদ রঙের পোশাকের আদলে হিমু নামের পাঞ্জাবি, ফতুয়া, টি-শার্ট, শাড়ি কিংবা থ্রি-পিসে মুন্সীগঞ্জের ঈদ বাজার সবার প্রিয় হয়ে উঠেছে। রাজধানীর নিকটবর্তী মুন্সীগঞ্জ জেলা শহরের মার্কেট-শপিং মলগুলোয় এ ঈদে হিমু পোশাকের কেনাকাটা বেশ জমেছে। মুন্সীগঞ্জে এবার ঈদের কেনাকাটায় অধিকাংশ ক্রেতার পছন্দের পোশাকই হচ্ছে-হিমু। নান্দনিক কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদ চলে গেছেন। কিন্তু সাহিত্যকর্মের অনন্য সাধারণ সৃষ্টি হিমুকে রেখে গেছেন পাঠককুলের মাঝে।

পাঠক প্রিয় হিমু চরিত্রকে সামনে রেখে মুন্সীগঞ্জের ঈদ বাজার ছেয়ে গেছে হিমু পোশাকে। শহর-শহরতলীর মার্কেট ও শপিং মলগুলোয় ‘হিমু’ পোশাকের জনপ্রিয়তা এখন তুঙ্গে। শহরের সুপার এলাকার একটি শপিং মলের মিহিকা ডিপার্টমেন্টাল স্টোরে ঘুরে দেখা গেছে হিমু নামীয় পোশাক কেনার উপচে পড়া ভিড়। শিশু-কিশোর-তরুণদের এবার ঈদে পছন্দের পোশাক হয়ে উঠেছে হিমু। প্রিয়জনকে ঈদ উপহারের ক্ষেত্রেও হিমু ফতুয়া, শার্ট কিংবা পাঞ্জাবিতে আগ্রহ লক্ষ্য করা গেছে। হিমুর প্রতি অকৃত্রিম দুর্বলতা থেকে নারীদের কেনাকাটায় এসেছে হলুদ রঙের প্রধান্য।

শাড়ি কিংবা থ্রি-পিস কেনায় হলুদ রঙ বেছে নিচ্ছেন তারা। শহরের ব্যবসায়ীরা জানান, ঈদে থ্রি-পিস, টু-পিস জামা কেনায় তরুণীদের পছন্দের রঙ এখন হলুদ। রোজার মাঝামাঝিতে এবার ঈদে শহরের বিপণি বিতানগুলোয় ক্রেতাদের কেনাকাটার ঢল নেমেছে। শহরের মালপাড়া মোড় থেকে পুরানো কাচারিঘাট এলাকার প্রধান সড়কে ক্রেতাদের ভিড়ে পায়ে হাঁটা দায় হয়ে পড়েছে। প্রচণ্ড ভিড় ঠেলে কেনাকাটায় নারীদের উপস্থিতিই সবচেয়ে বেশি। শহরের শহর জামে মসজিদ মার্কেট, জিএইচ সিটি সেন্টার, ইউরো প্লাজা, ইসলাম মার্কেট, আমেনা মোল্লা মার্কেট, ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংক সংলগ্ন মার্কেট, কারুপণ্য, পিনন্ধন, পাল ক্লথ স্টোর, নিশাত, জেলা পরিষদ মার্কেট, শতরুপা প্রভৃতি বিপণি বিতানগুলোতে কেনাকাটায় এখন দম ফেলার ফুসরত নেই। সকাল থেকে মধ্য রাত পর্যন্ত চলছে কেনাকাটার ধুম।

মানবজমিন

Leave a Reply