পরিত্যক্ত হলো মাওয়ার ৩ নম্বর ফেরিঘাট

মুন্সীগঞ্জের মাওয়ায় ফাটল দেখা দেওয়ায় তিন নম্বর রো রো ফেরিঘাট পরিত্যক্ত ঘোষণা করা হয়েছে। তবে নতুন উদ্ধোধন হওয়া ঋষিবাড়ির ঘাটটি চালু আছে। সোমবার সকাল সাড়ে ৯টা থেকে এ ঘাট দিয়ে কোনো ফেরি চলাচল করছে না।

বিআইডব্লিউটিসির ব্যবস্থাপক সিরাজুল ইসলাম জানান, মাওয়া লঞ্চঘাট এলাকার নতুন ফেরিঘাটটি প্রায় পাঁচ ঘণ্টা কাজ করার পর ফেরি চলাচল স্বাভাবিক করা হবে। শনিবার রাতে এই ঘাটটির উদ্ধোধন করা হয়েছিল।

তিনি জানান, তিন নম্বর ঘাটে রো রো পল্টুনটি মাওয়া লঞ্চঘাট এলাকার নতুন ফেরিঘাটে বসানো হচ্ছে। বসানো হলেই ফেরি চলাচল স্বাভাবিক হবে।

বিআইডব্লিউটিএ’র উপ-পরিচালক আব্দুস সালাম জানান, তিন নম্বর ফেরিঘাটের কাছে রাতে বড় ধরনের ফাটল দেখা দেওয়ায় কর্তৃপক্ষ ঘাট বন্ধ করে দেবে বলে সিদ্ধান্ত নেয়।

লৌহজংয়ের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. সাইফুল ইসলাম জানান, মাওয়া তিন নম্বর ও দুই নম্বর ফেরিঘাটের মাঝামাঝি পদ্মায় নতুন করে ভাঙন দেখা দিয়েছে। এ ঘাটের মাঝখানে বেশ কয়েকটি বাড়ি ছিল, সেখান থেকে লোকজন ও মালপত্র সরিয়ে নেয়া হচ্ছে।

এর আগে গত ৯ ও ১৪ অক্টোবর পরপর মাওয়ার পুরনো দুটি ফেরিঘাট পদ্মায় বিলীন হয়ে যায়। তখন একমাত্র তিন নম্বর ফেরিঘাটটি দিয়েই এক সপ্তাহ ধরে মাওয়া-কাওড়াকান্দি নৌপথে যানবাহন পারাপার করা হয়। এতে ঘাট পাড়ি দিতে গিয়ে যাত্রীদেরকে ব্যাপক ভোগান্তির মধ্যে পড়তে হয়।

এই পরিস্থিতিতে নৌমন্ত্রী শাজাহান খানের ঘোষণা অনুযায়ী মাওয়ার চৌরাস্তামুখী সড়কের কাছে, ঋষিবাড়ীর কাছে এবং ভাগ্যকূল সড়কমুখী কান্দিপাড়ায় নতুন তিনটি ফেরিঘাট নির্মাণের কথা জানায় কর্তৃপক্ষ।

চৌরাস্তামুখী ও ঋষিবাড়ীর কাছের ফেরিঘাট দুটি নির্মাণের পর চালু হলেও ভাগ্যকূল সড়কমুখী কান্দিপাড়া ফেরিঘাটের কাজ শুরু হয়।

জাস্ট নিউজ

Leave a Reply