মাওয়ায় স্পিডবোটের সংঘর্ষে নিহত ১, নিখোঁজ ৪

মাওয়া-কাওড়াকান্দি নৌরুটে সোমবার রাতে দুটি স্পিডবোটের মুখোমুখি সংঘর্ষে অজ্ঞাতপরিচয়(৩২) এক নারী নিহত হয়েছেন। এতে স্পিডবোট দুটি ডুবে এক চালকসহ অন্তত ৪ যাত্রী নিখোঁজ ও ১০ যাত্রী আহত হয়েছেন। শ্রীনগর ষোলোঘর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার রাতে মারা যান তিনি।

জানা গেছে, সোমবার রাতে লৌহজংয়ের মাওয়ার কাছে পদ্মা নদীতে কাওড়াকান্দি থেকে মাওয়াগামী দেলোয়ার হোসেনের স্পিডবোটের সঙ্গে মাওয়া থেকে মাঝিকান্দিগামী লিটু খানের স্পিডবোটের মুখোমুখি সংর্ঘষ হয়।

এতে স্পিডবোট দুটি ডুবে গিয়ে দেলোয়ার হোসেনের স্পিডবোট চালক ইমান হোসেনসহ উভয় স্পিডবোটের অন্তত ৪ যাত্রী নিখোঁজ হন।

এ ঘটনার প্রায় দেড় ঘণ্টা পর একটি ট্রলার ভাসমান যাত্রীদের উদ্ধার করেছে বলে দুর্ঘটনা কবলিত যাত্রী আলম হোসেন বাংলানিউজকে মুঠোফোনে নিশ্চিত করেছেন। এতে অন্তত ১০ যাত্রী আহত হয়েছেন বলেও জানান তিনি। আহতদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

তবে,গুরুতর আহত অজ্ঞাতপরিচয় এক নারী মুন্সিগঞ্জের শ্রীনগর ষোলোঘর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার রাতে মারা যান।


শিবচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) একেএম মাসুদ বাংলানিউজকে জানান, মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ের মাওয়ার ঘাটের অদূরে রাত আনুমানিক ১০টা থেকে সাড়ে ১০টার মধ্যে এ দুর্ঘটনা ঘটেছে। শিবচরের এক চালকসহ ৪ যাত্রী নিখোঁজ রয়েছেন বলে খবর পাওয়া গেছে।

শ্রীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জসিমউদ্দীন স্পিডবোটের মুখোমুখি সংঘর্ষে একজন নারী নিহত হয়েছেন বলে বাংলানিউজকে জানান।

মাওয়া নৌপুলিশ ফাঁড়ি ইনচার্জ উপ-পরিদর্শক (এসআই) হাফিজুর রহমান বাংলানিউজকে জানান, সকালে নদীতে দুই দফা তল্লাশি চালানো হয়েছে। কিন্তু কাউকে পাওয়া যায়নি। যাত্রী নিখোঁজ হয়েছেন কিনা এ ব্যাপারে তাদের কাছে কোনো তথ্য নেই।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
================

Leave a Reply