বাবার বিরুদ্ধে মেয়েকে অপহরনের অভিযোগ!

মুন্সীগঞ্জে শহরের উপকন্ঠ পাচঁঘুরিয়া কান্দি এলাকায় বাবার বিরুদ্ধে মেয়েকে অপহরনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। আজ বেলা ১১টার সময় মুন্সীগঞ্জ সদর থানায় স্ত্রী ময়না বেগম বাদি হয়ে স্বামী স্বপনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে।

এজাহারে দেখা যায় গত শুক্রবার দুপুরে ১টার সময় ৭ মাসের মেয়ে স্বপ্নাকে নিয়ে বাহিরে হাটতে যাই বলে নিয় পালিয়ে যায়। তার পর থেকে বিভিন্ন স্থানে খোজাখুজি করে তাকে আর পাওয়া যায়নি এমকি তার ব্যবরিত মোবাইল ফোনটিও বন্ধ রাখা হয়েছে। এদিকে গত রাতে রং নাম্বারে ফোন করে এক লক্ষ টাকা দাবী করে। টাকা দিতে না পারলে মেয়ে বিক্রি করে দিবে বলে হুমকি দেয় পাশন্ড বাবা।

অপর দিকে স্ত্রী ময়না বেগম জানান, প্রেমে ফাঁেদ ফেলে আমায় বিয়ে করেছে। তিনি আরো জানান, পরে আমি জানতে পারি স্বপন আগে একটি বিয়ে করেছে। এ বিষয় নিয়ে সংসারে বিভিন্ন সময়ে ঝগড়া হতো এবং আমাকে ব্যাপাক মারদর করতো। এবং এক প্রর্যায়ে র্কোটে মামলা করি, কিছু দিন জেল খেটে বের হয়। প্রথম স্ত্রী স্বপনকে তালাক দেয়। পরে এক প্রর্যায়ে আগের স্ত্রী সখিঁনা বেগমের সাথে মিলকরে অপহরন করে ২য় স্ত্রী ময়নার এক মাত্র ৭ মাসের সন্তান স্বপ্নাকে। স্বপ্নাকে হারিয়ে সবার দারে দারে ঘুরছে হতভাগ্য ময়না।

এ দিকে হাতিমার পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ বিকাশ সরকার জানান, আমরা অভিযোগ পেয়েছি। ৭ মাসের বাচ্চাটি উদ্ধার করার প্রচেষ্টা চলছে।

বাংলা সংবাদ

Leave a Reply