নয়ীম গহর রাষ্ট্রীয় সহযোগিতা চান

‘জন্ম আমার ধন্য হলো মাগো’ ও ‘নোঙ্গর তোলো তোলো’ শীর্ষক জাগরণমূলক গানের খ্যাতিমান গীতিকার নয়ীম গহর তার ব্যয়বহুল চিকিৎসার জন্য রাষ্ট্রীয় সহযোগিতা প্রত্যাশা করছেন…

‘জন্ম আমার ধন্য হলো মাগো’ ও ‘নোঙ্গর তোলো তোলো’ শীর্ষক জাগরণমূলক গানের খ্যাতিমান গীতিকার নয়ীম গহর দীর্ঘদিন ধরে বার্ধক্যজনিত নানা সমস্যায় ভুগছেন। বর্তমানে তিনি রাজধানী উত্তরার ওমেন্স হাসপাতালে মুমূর্ষু অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এখন তার পরিবার চিকিৎসার খরচ চালিয়ে যেতে পারছে না।

তাই নয়ীম গহর তার এ ব্যয়বহুল চিকিৎসার জন্য রাষ্ট্রীয় সহোযোগিতা প্রত্যাশা করছেন। এ প্রসঙ্গে নয়ীম গহরের মেয়ে অভিনেত্রী ইলোরা গহর বলেন, ‘ছয় মাস আগে স্ট্রোক করার কারণে বাবার স্মৃতিশক্তি কিছুটা লোপ পেয়েছে। চলার শক্তিও হারিয়ে ফেলেছেন। বর্তমানে খাবার খাওয়ার শক্তিও পাচ্ছেন না। চিকিৎসার কারণে বিছানায় শুয়ে থাকতে থাকতে পিঠে ঘা হয়ে গেছে। বাবার উন্নত চিকিৎসার্থে সরকারকে পাশে দাঁড়ানোর জন্য বিনয়ের সঙ্গে আহ্বান জানাচ্ছি। এ জন্য আমরা প্রধানমন্ত্রীর একান্ত সহযোগিতা কামনা করছি।’ এর আগে ২০০০ সালে ৭৮ বছর বয়সী এ গীতিকার প্রধানমন্ত্রীর সার্বিক সহযোগিতায় ওপেন হার্ট সার্জারি করিয়েছিলেন।

উল্লেখ্য, নয়ীম গহর মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের ‘জন্ম আমার ধন্য হলো মাগো’, ‘নোঙ্গর তোলো তোলো’, ‘পুবের ওই আকাশে সূর্য উঠেছে’, ‘সাগর পাড়িতে ঝড় জাগে যদি জাগতে দাও’, ‘জয় জয় জয় জয় বাংলা’ প্রভৃতি গান লিখে মুক্তিযোদ্ধাদের অনুপ্রেরণা জুগিয়েছিলেন। তিনি একাধারে গীতিকার, ঔপন্যাসিক, গায়ক, নায়ক, নাটক রচয়িতা, বিবিসি বাংলার ভাষ্যকার ও সংবাদ পাঠক। তিনি তার কার্যের স্বীকৃতিস্বরূপ ২০১২ সালে স্বাধীনতা পদক অর্জন করেন।

যাযাদি

Leave a Reply