সিরাজদিখানে ১০ ইউনিয়নেই আ.লীগ জয়ী

সিরাজদিখানে কেন্দ্র দখল, হামলা, ধাওয়া, পালটা ধাওয়া, অগ্নিসংযোগ, নির্বাচন বর্জনসহ নানা বিশৃঙ্খলার মধ্য দিয়ে সমাপ্ত হওয়া নির্বাচনে সবকটি ইউনিয়নেই আওয়ামী লীগ বিজয়ী হয়েছে।

মঙ্গলবার উপজেলার ১৪টি ইউনিয়নের মধ্যে ১০টি ইউনিয়নের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এর মধ্যে আগেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন জৈনসার ইউনিয়নে আ.লীগের প্রার্থী রফিকুল ইসলাম দুদু।

বেসরকারিভাবে নির্বাচিতরা হলেন বালুরচর ইউনিয়নে আলহাজ আবু বকর সিদ্দিক ১৩ হাজার ৫২৫ ভোট পেয়ে পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির আমিন উদ্দিন চৌধুরী পেয়েছেন ৪ হাজার ৭৯৮ ভোট।

লতব্দী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের এস এম সোহরাব হোসেন পেয়েছেন ৬ হাজার ৬৯৮। তার নিটকতম প্রতিদ্বন্দ্বী আ.লীগের বিদ্রোহী হাফেজ ফজলুল হক পেয়েছেন ৪ হাজার ৯২৩ ভোট।

রশুনিয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের ইকবাল হোসেন চোকদার পেয়েছেন ৫ হাজার ৪৫৭ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী জাহিদ হাসান পেয়েছেন ২ হাজার ৪১৯ ভোট।

ইছাপুরা ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের আব্দুল মতিন হাওলাদার ৬ হাজার ৯৬ ভোট পেয়ে পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিটকতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির কাজী কামরুজ্জামান লিপু পেয়েছেন ৪ হাজার ১৪০ ভোট।

বয়রাগাদী ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের গাজী মো. আলাউদ্দিন পেয়েছেন ৩ হাজার ২৪৫ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী বর্তমান চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান সোহাগ পেয়েছেন ২ হাজার ৯০০ ভোট।

মধ্যপাড়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের হাজী করিম শেখ ৫ হাজার ৮৭৭ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির আজিম আল রাজি পেয়েছেন ২ হাজার ৮৭০ ভোট।

বাসাইল ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের সাইফুল ইসলাম যুবরাজ ৬ হাজার ৮৮৫ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী সাংবাদিক শামসুজ্জামান পনির পেয়েছেন ৫ হাজার ১০১ ভোট।

কোলা ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মীর লিয়াকত আলী ৩ হাজার ৫১০ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির আবু তাহের পেয়েছেন ১ হাজার ৩০৮ ভোট।

মালখানগর ইউনিয়নে সানজিদা আক্তার জ্যোৎনা ৫ হাজার ৮০ ভোট পেয়ে পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। এ ইউনিয়নে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির আজিজুল হক খান পেয়েছেন ১ হাজার ৭১৩ ভোট।

এসব ইউনিয়নের মধ্যে বিএনপির ৪ চেয়ারম্যান প্রার্থী বালুরচর ইউনিয়নে আমিন উদ্দিন চৌধুরী, বয়রাগাদী ইউনিয়নে মাহমুদুর রহমান কুট্রি, মধ্যপাড়া ইউনিয়নে আজিম আল রাজি, মালখানগর ইউনিয়নে আজিজুল হক খান ও একই ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী নাজমা বেগম আনুষ্ঠানিক ভোট বর্জনের ঘোষণা দেন।

পূর্ব পশ্চিম

Leave a Reply