ইউপি নির্বাচন: ৩টি ক্যাম্প ভাঙ্গার অভিযোগ

মুন্সীগঞ্জে ৪র্থ দফায় ইউপি নির্বাচনের প্রচারণার শেষ দিকে টঙ্গীবাড়ি উপজেলার ১২টি ও সদর উপজেলার ৩টি ইউনিয়নের সকল প্রার্থী এলাকা চষে বেড়াচ্ছেন। ৭মে মোট ১৫টি ইউনিয়নে নির্বাচন হতে যাচ্ছে। তবে ইতিমধ্যে টঙ্গীবাড়ি-সোনারং ইউনিয়নে পরিষদে চেয়ারম্যান পদে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বচিত হয়েছেন নৌকা প্রতীকের প্রার্থী।

এদিকে সীমানা সংক্রান্ত জটিলতার কারণে টঙ্গীবাড়ি ইউনিয়নের পাঁচগাঁও নিউনিয়নে এবার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে না।

নির্বাচনের ২ দিন বাকি থাকলেও প্রচার প্রচারনায় ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন এখানকার অনেক প্রার্থী। তীব্র তাপ উপেক্ষা করে গ্রামের আকাবাকা পথ অতিক্রম করে প্রতিটি ঘর প্রচারনা চালাচ্ছেন প্রার্থীরা। গতকাল বিকালে টঙ্গীবাড়ি উপজেলার কামাড়খাড়া ইউনিয়নের নৌকা প্রতীকের প্রার্থী মহিউদ্দিন হাওলাদার প্রচারনা চালিয়েছে কামারখাড়া বাজারে। এছাড়া বিএনপি সভাপতি ও সাবেক প্রতি মন্ত্রী আব্দুল হাই ধানের শীষের প্রচারনা ও উঠান বৈঠক করেছে পঞ্চসার ইউনিয়ন বিভিন্ন এলাকা ও রামপাল ইউনিয়নের হাতিমারা এলাকায়। এছাড়া গতকাল রাতে নৌকা প্রতীকের সমর্থকরা সতন্ত্র প্রাথী আনারস প্রতীকের ৩ টি নিবাচর্নী ক্যাম্প ভেঙ্গে ভেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এছাড়া রামপালে গভীর রাত পযর্ন্ত মোটর সাইকেল মহড়া ও একাধিক ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

হাতীমাড়া ফাড়ী ইন্চার্জ এস আই বিকাশ চন্দ্র সরকার ফোনে জানান, সমস্যায় ও ব্যাস্তায় আছি। আগে সমস্যা শেষ হক, পরে কথা বলছি।

বিডিলাইভ

Leave a Reply