মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবে প্রতিবাদ সভা

মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবে প্রতিবাদসভা সভা হয়েছে। মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবসহ জেলার স্বনামধন্য বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ও সংগঠনকে জড়িয়ে বিদায়ী জেলা প্রশাসক মো. সাইফুল হাসান বাদলের সংবর্ধনা নিয়ে বিকৃত তথ্য উপস্থাপন করে একটি জাতীয় পত্রিকায় বুধবার সংবাদ প্রকাশ করে। এর প্রতিবাদে বৃহস্পতিবার রাতে এই প্রতিবাদসভা অনুষ্ঠিত হয়। প্রেসক্লাব ভবনের সাংবাদিক সফিউদ্দিন মিলায়নতনে এই প্রতিবাদ সভায় প্রেসক্লাব সভাপতি রাসেল মাহমুদ সভাপতিত্ব করেন।

এতে আলোচনা করেন প্রেসক্লাবের সাবেক দুই সভাপতি আরিফ-উল-ইসলাম ও মীর নারিউদ্দিন উজ্জ্বল, সহ-সভাপতি বাছির উদ্দিন জুয়েল, সাধারণ সম্পাদক সোনিয় হাবিব লাবনী, সাংবাদিক আতিকুর রহমান টিপু, মাহবুব আলম লিটন, সাংবাদিক আবু সাঈদ সোহান, সাংবাদিক মাহবুবুর রহমান, কোষাধ্যক্ষ ফরিদুল হাসান ফরিদ, দফতর সম্পাদক মাসুদুর রহমান, প্রচার সম্পাদক সাইফুর রহমান টিটু, তথ্য ও প্রযুক্তি সম্পাদক তানজীল হাসান, দৈনিক টারমিগান সম্পাদক মোহাম্মদ সেলিম, সাংবাদিক শেখ মোহাম্মদ শিমুল, সাংবাদিক শামসুল হুদা হিটু ও মোহাম্মদ রুবেল প্রমুখ।

প্রতিবাদ সভায় বক্তরা প্রতিবেদনটিতে মিথ্যা ও বিকৃতভাবে তথ্য উপস্থাপন করে মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবকে হেয় করার অপেচষ্টায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানায়। বক্তরা বলেন, যে জেলা প্রশাসক বঙ্গবন্ধুর স্মরণে ১৫ লাখ গাছের চারা রোপন করেছেন শিক্ষার্থীদের হাত দিয়ে রোপন করিয়েছেন এবং ইউনিয়ন ও পৌরসভা পর্যায়ে ভ্রাম্যমান লাইব্রেরীসহ ১২৩টি লাইব্রেরী প্রতিষ্ঠা, প্রবাসীদের ডাডা বেজ তৈরী, সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের ডাটা বেজ, জেলা শহর মুক্তিযুদ্ধ কমপ্লেক্স নির্মাণ এবং শহরের বাইরের ৫টি উপজেলায় মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সের জমি প্রদান, মৃত প্রায় মুন্সীগঞ্জ কলেজ ও হাটলক্ষীগঞ্জ প্রথমিক বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠাসহ নানা সৃজনশীল কর্মকান্ড পরিচালনা করেছেন।

এসব অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ তিনি ২০১৩ সালে শ্রেষ্ঠ জেললা প্রশাসক হিসাবে প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা পদক, ২০১৪ সালে শ্রেষ্ঠ তথ্য বাতায়ন পুরস্কার, ২০১৫ সালে প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে বৃক্ষরোপনে শ্রেষ্ঠ পদক গ্রহন, শিক্ষা ও সামাজিক অবদানের জন্য ২০১৬ সালে অতীশ দীপঙ্কর আন্তর্জাতিক শান্তি স্বর্ণ পদক লাভ করেন। এই জেলা প্রশাসক নানা মানবিক কাজ করে এবং মুন্সীগঞ্জ জেলাকে এগিয়ে নেয়ার ক্ষেত্রে ও মানবকল্যাণে তাঁর নানা কর্মকান্ড জেলাবাসীর মনে দাগ কেটেছে। কিন্তু স্বার্থানের্ষী মহল হীন স্বার্থ চরিতার্থ করতে ব্যর্থ হয়ে মিথ্যাচার এবং একতরফা সংবাদ প্রকাশ করে নানা প্রশ্নের উদ্রেক সৃষ্টি করেছে।

জনকন্ঠ

Leave a Reply