শ্রীনগরে প্রবাসীর স্ত্রীর নগ্ন ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেওয়া পরকিয়া প্রেমিক গ্রেপ্তার

আরিফ হোসেন: শ্রীনগরে অনৈতিক সম্পর্কের পর এক প্রবাসীর স্ত্রীর নগ্ন ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে ওই নারীর পরকিয়া প্রেমিককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার উত্তর রাঢ়িখাল গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে বখাটে যুবক মেহেদী হাসান অমিত (৩০) কে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এর আগে ধর্ষণ করে নগ্ন ভিডিও ধারণের পর ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে উপজেলার কামার গাও এলাকার এক সৌদি আরব প্রবাসীর স্ত্রী শ্রীনগর থানায় মেহেদী হাসানের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

শ্রীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ এসএম আলমগীর হোসেন জানান, মামলা রেকর্ড করে আসামীকে আদালতে প্রেরণের প্রস্তুতি চলছে। অপরদিকে ভিকটিমকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য জেলা হাসপাতালে পাঠানো হচ্ছে। স্থানীয়রা জানায়, সৌদি প্রবাসীর স্ত্রী ওই নারী সরকারী শ্রীনগর কলেজের অনার্সের ছাত্রী। তার ৪ বছরের একটি কন্যা সন্তান রয়েছে।

মামলার এজাহার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, শ্রীনগর কলেজে যাওয়া আসার পথে প্রবাসীর স্ত্রীর সাথে বখাটে মেহেদী হাসানের পরকিয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। এক পর্যায়ে মেহেদী হাসান ওই প্রবাসীর স্ত্রীর সাথে শারীরীক সম্পর্কে লিপ্ত হয় ও নগ্ন ভিডিও ধারণ করে। পরবর্তীতে ওই ভিডিওকে পুঁজি করে মেহেদী হাসান তাকে একাধিক বার ধর্ষণ করেছে বলে ওই প্রবাসীর স্ত্রী অভিযোগ করেণ।

সম্প্রতি ওই নারীর স্বামী প্রবাস থেকে দেশে চলে আসায় সে মেহেদী হাসানের ডাকে সারা দিতে অপারগতা প্রকাশ করে। এতে মেহেদী হাসান ক্ষিপ্ত হয়ে ওই নারীর নগ্ন ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেয়। তবে মেহেদী হাসানের পরিবারের দাবী ওই প্রবাসীর স্ত্রীর সাথে মেহেদী হাসানের বিয়ে হয়েছে। শুক্রবার দুপুরে ওই নারী শ্রীনগর থানায় উপস্থিত হয়ে বিয়ের বিষয়টি অস্বীকার করেণ এবং বখাটে মেহেদী হাসানের শাস্তি দাবী করেন।

Leave a Reply