লৌহজংয়ে ‘মুক্ত বিহঙ্গে’র সচেতনতামূলক সভা

মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলাকে মডেল উপজেলা হিসেবে গড়ে তোলার লক্ষে বাল্য বিবাহ, যৌতুক, নারী ও শিশু নির্যাতন, যৌন হয়রানী, মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গীবাদ প্রতিরোধে সচেতনতামূলক আলোচনা সভা হয়েছে। উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তার কার্যালয়ের আয়োজনে মঙ্গলবার সকালে উপজেলা খিদিরপাড়া উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে সার্বিক সহযোগিতায় ছিল উপজেলা প্রশাসন।

লৌহজং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মনির হোসেনের সভাপতিত্বে ও মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সেলীমা খাতুনের সঞ্চলনায় এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান জাকির হোসেন বেপারী। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শ্রীনগর সার্কেল) মো. সাইফুল ইসলাম, উপজেলা সিনিয়র কর্মকর্তা কামরুল হাসান, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা দেওয়ান মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর হোসেন, লৌহজং উপজেলা ভারপ্রাপ্ত কর্মকতা মো. আনিচুর রহমান, লৌহজং বিশ্ব বিদ্যালয়ের ভাইস প্রিন্সিপাল মো. শহিদুল ইসলাম, খিদির পাড়া ইউপি চেয়ারম্যান মো. আনোয়ার হোসেন, বিদ্যালয়ের দাতা সদস্য আক্তারুজ্জামান মোল্লা, কনকসার ইউপি আ’লীগ সভাপতি মো. মনির হোসেন। এছাড়া বক্তব্য রাখেন অভিভাবক প্রতিনিধি মোহাম্মদ মোকসেদ আলী, নবব শ্রেনীর ছাত্র শাহাদাৎ হোসেন, সুরাইয়া আক্তার প্রমূখ।

বক্তারা বলেন, বাল্য বিবাহ, যৌতুক, নারী ও শিশু নির্যাতন, যৌন হয়রানী, মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গীবাদ এ কয়টা জিনিস সমাজ থেকে মুছে ফেলতে পারলে আমরা লৌহজং উপজেলাকে একটি মডেল উপজেলা হিসেবে গড়ে তুলতে পাড়বো। আর মডেল উপজেলা গড়তে হলে প্রথমে আমদের ছাত্রছাত্রীদের সচেতন করতে হবে। কারণ তারাই হচ্ছে দেশের ভবিষ্যৎ। বাল্য বিয়ে সম্পর্কে তাদের ধারণা থাকলে নিজের বিয়ে নিজেই প্রতিরোধ করতে পারবে।

অনুষ্ঠানে খিদির পাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ১১ জন ছাত্র-ছাত্রী নিয়ে ‘মুক্ত বিহঙ্গ’ নামে একটি কমিটি গঠন করা হয়। এ কমিটি উপরোক্ত বিষয়ে কাজ করবে এবং সমস্যা ও সমাধান নিয়ে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও প্রশাসনকে অবগত করবে। মুক্ত বিহঙ্গ নামে এরকম কমিটি উপজেলার প্রতিটি স্কুল কলেজে গঠন করা হবে। এছাড়া উপস্থিত শিক্ষার্থীদের এ বিষয়ে শপথ বাক্যও পাঠ করানো হয়।

জনকন্ঠ

Leave a Reply