মুন্সীগঞ্জ পুলিশ সুপার: কমিউনিটি পুলিশিং সমাবেশ চাঁদার টাকায় হয়না

কমিউনিটি পুলিশিং ডে নিয়ে চাঁদাবাজি করবেন না। চাঁদা তুলে কমিউনিটি পুলিশের কোনো আয়োজন করা হয়না। কেউ এই আয়োজনের সূত্র ধরে চাঁদাবাজি করবেন না। এতে করে সাধারণ মানুষের কাছে এর ভাবমূর্তি খারাপ হয়।

জেলা পুলিশ সুপার জায়েদুল আলম পিপিএম নির্দেশে এই সমাবেশ সফলভাবে উদযাপন করা হবে। কমিউনিটি পুলিশিং ডে আয়োজনের প্রস্তুতি সভায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান এসব কথা বলেন।

শুক্রবার (২৭ অক্টোবর) বিকেল ৪টার দিকে জেলা পুলিশ সুপার কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে এই প্রস্ততিমূলক সভা অনুষ্ঠিত হয়।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বলেন, কমিউনিটে পুলিশিংয়ের মাধ্যমে সাধারণ জনগণের সঙ্গে পুলিশের সম্পর্ক তৈরি হবে। পুলিশের কাছে কী ধরণের সেবা তারা আশা করে সেই ধারণা থাকা প্রয়োজন। জনগণের সঙ্গে পুলিশের সম্পর্ক যত গভীর হবে ততই ভালো।

এসময় সমাবেশের আয়োজন করতে এবং স্বচ্ছতা আনতে যারা টাকা দিয়েছেন তাদের নাম উল্লেখ করেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার। এছাড়া বিগত কমিউনিটি পুলিশিং সমাবেশ থেকে এবারের আয়োজন জাঁকজমকপূর্ণভাবে হবে বলে জানান তিনি।

সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন, মুন্সীগঞ্জ পৌর মেয়র হাজী মোহাম্মদ ফয়সাল বিপ্লব, জেলা কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের সভাপতি প্রবীর কুমার গাঙ্গুলী, সদর উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক মো. কবির হোসেন, মোল্লাকান্দি ইউপি চেয়ারম্যান মহসিনা হক কল্পনা, জেলা পরিষদ সংরক্ষিত মহিলা আসনের সদস্য লিপি আক্তার, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি মতিউর ইসলাম হিরু, সাবেক সভাপতি শাহীন মোহাম্মদ আমানউল্লাহ, মুন্সীগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ভবতোষ চৌধুরী নুপুর এবং জেলার বিভিন্ন পুলিশ ও কর্মকর্তারা।

শনিবার (২৮ অক্টোবর) প্রথমবারের মত সারাদেশে জেলা, উপজেলা পর্যায়ে একযোগে ‘কমিউনিটি পুলিশিং ডে’ উদযাপিত হবে।

দিবসটি উপলক্ষে মুন্সীগঞ্জে র‌্যালি, সমাবেশ, আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন করা হবে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন মুন্সীগঞ্জ ৩ আসনের সংসদ সদস্য এড. মৃণাল কান্তি দাস। মুখ্য আলোচক থাকবেন, জেলা পুলিশ সুপার জায়েদুল আলম পিপিএম। সভাপতিত্ব করবেন জেলা কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের সভাপতি প্রবীর কুমার গাঙ্গুলী।

সোনালীনিউজ

Leave a Reply