ইলিশ ছিনতাইকালে পুলিশের এএসআই সহ ৩ জনকে আটক

ইলিশ ছিনতাইকালে স্থানীয় জনতা ও জেলেদের হাতে আটক হয়েছেন সোহেল রানা নামে এক পুলিশের এএসআই। শুক্রবার (১৯ অক্টোবর) সকাল ১০টার দিকে মুন্সীগঞ্জের লৌহজং এর শামুরবাড়ি এলাকায় পদ্মা নদীতে জেলেদের ভয়ভীতি দেখিয়ে ছিনতাইকালে সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) সোহেল রানা নামে এক পুলিশ সদস্যকে আটক করেন জনতা ও জেলেরা। এ সময় মো. মোহন (২৪) ও লিটন শেখ (২২) নামে তার দুই সহযোগীকেও আটক করা হয়। তাদের বাড়ি সিরাজদিখান উপজেলার জৈনসার এলাকায়। পরে তাদেরকে লৌহজং থানায় সোপর্দ করা হয়।

লৌহজং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা লিয়াকত আলী জানান, ইলিশ ছিনতাইকালে জনতা ও জেলেরা এএসআই সোহেলসহ ৩ জনকে আটক করে লৌহজং থানায় খবর দেন। খবর পেয়ে এএসআই সোহেল ও সঙ্গে আরও দুইজন সিভিলসহ মোট তাদের ৩ জনকে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়। তিনি আরও জানান, জেলেরা অভিযোগ করেন, গত বৃহস্পতিবার জেলেদের থেকে এএসআই সোহেল ও তার গংরা মাছ ও টাকা ছিনিয়ে নেয়। পরে তারা জানতে পারে সে লৌহজং থানায় কর্মরত নয়। পরে আজ ইলিশ মাছ ছিনতাই করতে গেলে তাকে আটক করে পুলিশকে খবর দেয়।

শ্রীনগর ও লৌহজং সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কাজী মাকসুদা লিমা জানান, প্রাথমিকভাবে অভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে। সে জেলেদের কাছ থেকে জোরপূর্বক মা ইলিশ ও টাকা আদায় করার সময় জনতা ও জেলেরা তাকে পাকড়াও করে থানা পুলিশে সোপর্দ করেন। তার বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা রুজুর বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

তিনি আরও জানান, এএসআই সোহেল আগে মুন্সীগঞ্জ পুলিশ লাইনে কর্মরত ছিলেন। কিছুদিন আগে তিনি ডিএমপিতে বদলি হন।

দৈনিক অধিকার

Leave a Reply