পহেলা বৈশাখে ব্যতিক্রমধর্মী আয়োজন করেছে‘একই বৃত্তে পঁচিশ’

পহেলা বৈশাখ উপলক্ষ্যে মুন্সিগঞ্জ শহরে ব্যতিক্রমধর্মী আয়োজন করেছে ‘একই বৃত্তে পঁচিশ’ নামের একটি সামাজিক সংগঠন। প্রতি বছরের ন্যায় এবারও শহরস্থ সুপার মার্কেট চত্তরে র‌্যাংগস শোরুমের সামনে প্যান্ডেল সাজিয়ে প্রায় দুই হাজার পথচারীকে মৌসুমী ফল দিয়ে আপ্যায়ন ও মিষ্টি মুখ করান সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

এ সময় তাদের আপ্যায়নে শহরের গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গদের দেখা গেছে। রকমারী ফলের পশরা সাজিয়ে তারা রিক্সাওয়ালা, ভ্যান চালক থেকে শুরু করে বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষকে দিনব্যাপী আপ্যায়ন করেন।

ফলের মধ্যে ছিল ১০০ পিছ তরমুজ, বাঙ্গি ও কলা। মিষ্টান্ন ছিল বালুশা। এসময় সংগঠনের সকলেই বৈশাখী সাজে সেজেছিল। মাথায় গামছা, সকলের পড়নে ছিল লাল সাদা পাঞ্জাবি।

ব্যতিক্রমী এ আয়োজনে প্রাণের ছোঁয়া পেয়েছে শহরবাসী। গরমে অতিষ্ঠ রিক্সাচালক, ভ্যানচালক ও খেটে খাওয়া দিনমজুরের জন্য দিনটি ছিল অতি আনন্দের। বৈশাখী এ আয়োজনে তারা ভীষণ আনন্দিত হয়েছেন। গরীবের জন্য আয়োজনটি প্রশংসার দাবীদার বলে এই প্রতিবেদককে জানিয়েছেন তারা।

গত ১৪ এপ্রিল সকাল সাড়ে ১০ টায় বৈশাখী ফল উৎসবের উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক সায়লা ফারজানা। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন ‘একই বৃত্তে পঁচিশ’ সংগঠনের সভাপতি বিশিষ্ট শিল্পপতি, সমাজসেবী ও শিক্ষানুরাগী আব্দুল আহাদ।

উল্লেখ্য, একই বৃত্তে পঁচিশ মুন্সিগঞ্জের সেরা সংগঠনের একটি। এ সংগঠনের উদ্যোগে রমজানে ইফতার মাহফিল, ঈদ উপলক্ষ্যে গরীব ছেলে মেয়েদের মাঝে নতুন জামা কাপড় বিতরণ,

কুরবানীর গোস্ত বিতরণ, অসহায় মানুষদের রিক্সা ও ভ্যান গাড়ি, দু:স্থ মহিলাদের মাঝে সেলাই মেশিন, শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণ করে থাকে। এছাড়াও শহরের সৌন্দর্যবর্ধনে কাজ করে থাকে এ সংগঠন।

যানজট নিরসনেও কাজ করে থাকে। সামাজিক কাজে সম্পৃক্ত বিভিন্ন সংগঠনকে আর্থিক সহযোগিতা ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে বৃত্তি প্রদান করে থাকে ‘একই বৃত্তে পঁচিশ’ সামাজিক এ সংগঠন।

মুন্সিগঞ্জ নিউজ

Leave a Reply