কেন বাড়ছে উচ্চ রক্তচাপ

প্রতিনিয়ত বাড়ছে উচ্চ রক্তচাপে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। আগে শুধুমাত্র বয়স্কদের মধ্যে এই রোগে আক্রান্ত হওয়ার প্রবণতা বৃদ্ধি হলেও এখন আক্রান্ত হচ্ছে তরুণরা। তবে হতশার বিষয় হচ্ছে আক্রান্ত ব্যক্তিদের মধ্যে অর্ধেকেরও বেশি রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণের বাইরে রয়েছে। অপরিকল্পিত নগরায়ণ, অস্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস ও গড় আয়ু বৃদ্ধির কারণে উচ্চ রক্তচাপের রোগী বাড়ছে। এবিষয়ে সার্বিক পরামর্শ দিয়েছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিসিন অনুষদের সাবেক ডিন অধ্যাপক ডা. এবিএম আবদুল্লাহ।

বিভিন্ন কারণে বাড়তে পারে উচ্চ রক্তচাপ। তবে শুধুমাত্র্র লবণের ব্যবহারের কারণে প্রায় ৬০ শতাংশ রোগী এই রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। এছাড়া ধূমপান, অ্যালকোহল সেবন, চর্বিযুক্ত খাবার গ্রহণ, হাঁটাচলা ও ব্যায়াম না করার কারণে মানুষ এই রোগে আক্রান্ত হয়। উচ্চ রক্তচাপের কারণে মস্তিস্কের রক্তক্ষরণ, হার্ট অ্যাটাক, কিডনি বিকল ও চোখের রেটিনা নষ্ট হয়ে যেতে পারে। উচ্চ রক্তচাপ থেকে দূরে থাকতে নিয়মতান্ত্রিক জীবনযাপন করতে হবে। নিয়মিত ব্যায়াম করতে হবে, চর্বিযুক্ত খাবার কম খেতে হবে। ধূমপান ও অ্যালকোহল বর্জন করতে হবে। উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে নিয়মিত ওষুধ সেবন করতে হবে।

এই রোগে প্রতি বছর প্রায় ৭০ লাখ মানুষ মারা যায়। দেশে উচ্চ রক্তচাপ আক্রান্ত মানুষের অবস্থা জানতে ২০১৬ এবং ২০১৭ সালে একটি গবেষণা কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়। বাংলাদেশ, শ্রীলংকা ও পাকিস্তানের গ্রামীণ জনগোষ্ঠীর মধ্যে নিয়ন্ত্রণহীন উচ্চ রক্তচাপ নিয়ে এ আন্তর্জাতিক গবেষণার নেতৃত্ব দেয় সিঙ্গাপুরের ডিউক-নাস মেডিকেল স্কুল।

এই গবেষণায় বাংলাদেশের নেতৃত্ব দেয় আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা কেন্দ্র, বাংলাদেশ (আইসিডিডিআর`বি)। দেশের মুন্সীগঞ্জ ও টাঙ্গাইল জেলার ১০ অঞ্চলের ৪০ বছর বা তার বেশি বয়সী ৪ হাজার ৪৪২ নারী ও পুরুষের রক্তচাপ পরীক্ষা করা হয়। এতে দেখা যায়, এক হাজার ১৪৮ জন উচ্চ রক্তচাপে আক্রান্ত। অর্থাৎ মোট ২৬ শতাংশ মানুষের রক্তচাপ স্বাভাবিকের তুলনায় বেশি। উচ্চ রক্তচাপ থেকে বাচঁতে আমাদের খাদ্যাভ্যাস পরিবর্তন করা উচিত।

ডা. এবিএম আবদুল্লাহ
একুশে-টেলিভিশন

Leave a Reply