শ্রীনগরে ৫ বছরের শিশুকে যৌন নির্যাতনের অভিযোগে মামলা

মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগরে পাঁচ বছরের এক শিশুকন্যাকে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার দত্তগাঁও গ্রামে এঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে শুক্রবার থানায় মামলা করা হয়েছে। এদিকে, ঘটনাটি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে স্থানীয় এক ওয়ার্ড মেম্বারের বিরুদ্ধে।

স্থানীয় সূত্রের অভিযোগ থেকে জানা যায়, বৃহস্পতিবার দুপুরে কুকুটিয়া ইউনিয়নের দত্তগাঁও গ্রামের মৃত আব্দু মান্নানের ছেলে আ: হাই ওরফে গাজা নিহার (৪৫) একই গ্রামের এক শিশুকন্যাকে কৌশলে বাড়ির পাশের একটি নির্জন স্থানে নিয়ে ধর্ষণ করেন। ধর্ষণের শিকার ওই শিশু বিকেলে বাড়িতে এসে তার নানীকে সব খুলে বলে। শিশুটি শারীরিকভাবে অসুস্থ হয়ে পড়লে পার্শ্ববর্তী লৌহজং উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য নেয়া হয়। এ ঘটনা এলাকায় জানাজানি হওয়ার পর থেকেই ধর্ষক নিহার গাঢাকা দিয়েছেন।

শিশুটির মা বর্তমানে সৌদি আরবে থাকেন। দেশে নানা-নানীর বাড়িতে থেকে লেখাপড়া করে শিশুটি।

এ বিষয়ে ওই এলাকার ইউনুছ বেপারী, মো: মজিবর রহমান, মো: তৈয়ব নামের বেশ ক’জন ঘটনাটি তারা লোকমুখে শুনেছেন বলে জানান। এমন ঘটনার আগেও নিহারের বিরুদ্ধে এলাকায় এধরনের অভিযোগ রয়েছে। সাংবাদিকদের প্রশ্নে পূর্বের ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেন ওই প্রতিবেশীরা।

ঘটনা ধামাচাপা দেয়ার ব্যাপারে স্থানীয় ইউপি সদস্য মো: নজরুল ইসলাম শেখ ঘটনা স্বীকার করে বলেন, ধর্ষণের বিষয়টি শোনার পরে শিশুটির বাড়িতে গিয়ে তার চিকিৎসার জন্য তার নানাকে পরামর্শ দিয়েছি।

শ্রীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মো: ইউনুচ আলীর কাছে এবিষয়ে জানতে চাইলে তিনি ঘটনার সত্যতা শিকার করে বলেন, অভিযোগ পেয়েছি, থানায় যৌন নিপীড়ন আইনে শুক্রবার মামলা হয়েছে। আসামি গাজা নিহারকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। শুক্রবার রাত সাড়ে ৭টার দিকে নির্যাতনের স্বীকার শিশুটি মুন্সীগঞ্জ সদর জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ওসি আরো জানান, তদন্ত সাপেক্ষে দ্রুত আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। হাসপাতালের মেডিকেল রিপোর্টে যৌন নির্যাতনের প্রমাণ পাওয়া গেছে।

নয়া দিগন্ত

Leave a Reply