মুক্তারপুরে আ’লীগের দুই ভাইয়ের গ্রুপে সংঘর্ষে আহত ৫

গেল উপজেলা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে বিরোধের জের ধরে বৃহস্পতিবার রাতে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার মুক্তারপুর ফেরিঘাট এলাকায় আওয়ামী লীগ সমর্থিত দুই ভাই গ্রুপের মধ্যে হামলা-পাল্টা হামলায় পাঁচজন আহত হয়েছে।

আহতদের মধ্যে স্থানীয় সংসদ সদস্য গ্রুপের গোলাম কিবরিয়া (৪৫) ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি গ্রুপের ইউপি চেয়ারম্যান সমর্থক চালক আব্দুস সালাম (৩৬)-কে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে। ঘটনার পরপর স্থানীয় সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস আহত গোলাম কিবরিয়াকে হাসপাতালে দেখতে ছুটে আসেন।

স্থানীয়রা জানান, গেল সদর উপজেলা নির্বাচনে গোলাম কিবরিয়া এবং তার বড় ভাই পঞ্চসার ইউনিয় পরিষদের চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফা ও মোস্তফার সহধর্মিনী ডালিয়া এবং গোলাম কিবরিয়া আওয়ামী লীগ প্রাথী ও বিদ্রোহী প্রার্থীর পক্ষে বিভক্ত হয়ে কাজ করে। এই নিয়ে পরিবারের মধ্যে বিরোধ দেখা দেয়। এই বিরোধকে কেন্দ্র করে এ হামলা-পাল্টা হামলার ঘটনা ঘটে।

আহত গোলাম কিবরিয়া জানান, তার আপন বড় ভাই পঞ্চসার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফা, তার সহধর্মিনী ডালিয়া ও মুসার নেতৃত্বে বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে মুক্তারপুর ফেরিঘাট এলাকায় তার উপর অর্তকিতে হামলা চালায়।

পঞ্চসার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফা জানান, তার পক্ষের বিআরটিএ’র চালক আব্দুস সালামকে কিবরিয়া বেধড়ক লাঠিপেটা করে। এ সময় তার সহধর্মিনী এগিয়ে গেলে তাকে একটি দোকানে আটক করে মারধরের চেষ্টা চালায়। এ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যান তিনি।

মুন্সীগঞ্জ সদর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আনিচুর রহমান জানান, পারিবারিক বিরোধ থেকে এ ঘটনা ঘটেছে।

অবজারভার

Leave a Reply