সিরাজদিখানে অবৈধ ড্রেজিং, হুমকির মূখে তিন ফসলী জমি ও বসত বাড়ী

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে সরকারী খাল থেকে অবৈধ ভাবে ড্রেজিং বসিয়ে বালু উত্তোলন করা হচ্ছে। এতে করে হুমকির মূখে পরেছে তিন ফসলী জমি ও বসত বাড়ী। স্থানীয় লোকজন প্রশাসনকে এ বিষয়ে অবগত করার পর ৮ জুন ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে অবৈধ ড্রেজিং বন্ধ করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায, উপজেলা লতব্দী ইউনিয়নের দোসরপাড়া লালন আখড়া সংলগ্ন ইছামতী নদীর শাখা খালের মাদবরবাড়ী শিড়ি খাটলা নামক স্থানে অবৈধ ড্রেজিং বসিয়ে দুদিন যাবৎ অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলন করছে স্থানীয় প্রভাবশালী ব্যাক্তি বিএনপি নেতা মোহন মাদবরের ছেলে জাহাঙ্গীর মাদবর। এলাকাবাসীর বাধাকে উপেক্ষা করে নিয়মনীতির কোন প্রকার তোয়াক্কা না করেই নির্বিঘ্নে চলছে অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলন। এতে করে খালটির পূ্র্ব পাশে প্রায় ২শ পাখি তিন ফলসী জমিসহ সরকারী রাস্তা ও বসত বাড়ী চরম ভাঙন হুমকির সম্মূক্ষিন হচ্ছে। জাহাঙ্গীর মাদবর দোসরপাড়া গ্রামের বাসিন্দা। এলাকাবাসী সূত্রে আরো জানা যায়, সরকারী খালের উপর অবৈধভাবে বালু উত্তোলনে বিএনপি নেতা জাহাঙ্গীর মাদবরকে শেল্টার দিচ্ছেন স্থানীয় আওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠনের প্রভাবশালী দুই নেতা। তবে তবে এলাকাবাসী ওই দুই নেতার নাম বলতে নারাজ।

জাহাঙ্গীর মাদবরের কাছে মুঠোফোনে এবিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, খালের পাশে জমিটা আমাদেরই। পানিতে তলিয়ে গেছে তাই ড্রেজার দিয়ে বালু তুলছি। আজকে পুলিশ এসে কাজ বন্ধ করে দিয়েছে। ভাই আমাদের জন্য কি কিছু করা যায়না?

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশফিকুন নাহার জানান, গতকালকে লোক পাঠানো হয়েছিলো, তাদেরকে ড্রেজিং বন্ধ রাখতে বলা হয়েছে। আজকে নায়েবের যাওয়ার কথা ছিলো।

আলোকিত মুন্সীগঞ্জ

Leave a Reply