মুন্সীগঞ্জে গাছ লাগিয়ে ও বাঁশের বেড়া দিয়ে প্রতিবেশিদের পথ রুদ্ধ

জসীম উদ্দীন দেওয়ান : মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার খিদিরপাড়া ইউনিয়নের পিংরাইল গ্রামে, সরকারী সড়কে গাছ লাগিয়ে ও বাঁশের বেড়া দিয়ে প্রতিবেশিদের পথ আটকিয়ে দিয়েছেন স্থানীয় মোহন্ত সরকার। গেলো মঙ্গলবার দেড়শ ফুট দৈর্ঘ্যের মাটির রাস্তা জুড়ে কাঠ গাছ রোপন করে এবং রাস্তার দুই পাশে ও রাস্তার মাঝামাঝি বাঁশের বেড়া দিয়ে আটকিয়ে দেওয়ায়, সপ্তাহ খানেক ধরে বাড়ি থেকে বেড় হতে মারাত্মক সমস্যায় পরেছে কয়েকটি পরিবারের সদস্যরা। ভুক্তভোগি নীল কৃষ্ণ জানান, বাড়ি থেকে বের হতে এটি তাদের একমাত্র রাস্তা হওয়ায়, তারা স্বাভাবিক চলাচল করতে পারছেনা। আলু আবাদের সময় অতিবাহিত হতে যাচ্ছে, রাস্তা বন্ধ থাকায়, জমিতে আলু আবাদের জন্য তারা বহন করতে পারছেনা বীজ আলুর বাক্স, কিংবা সারের বস্তা। ছয় বছর আগে ইউনিয়ন পরিষদ থেকে করা এই রাস্তাটি বর্তমানে মোহন্ত সরকারের জায়গায় ওপর করা হয়েছিলো বলে দাবি করে, এখন সে নিজের জায়গা উদ্ধার করছেন বলে জানান মোহন্ত সরকার। খিদিরপাড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ জানান, তিনি চেয়ারম্যান থাকাকালীন সময় সরকারী স্কিমে মাটির এই রাস্তাটি নির্মাণ করে দিয়েছিলেন।




মোহন্ত সরকার রাস্তাটি আটকিয়ে অন্যায় করেছেন। রাস্তা আটকানোর অধিকার কারো নেই, তেম্নি সে অধিকার মোহন্ত সরকারেরও নাই। ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন ঢাকা থেকে মোঠু ফোনে জানান, ঘটনাটি তার কানে এসেছে, তিনি ব্যাপারটি দেখবেন বলেও জানান। রাস্তা বন্ধ করে দেওয়ার ঘটনায় লৌহজং থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করা হয়েছে। প্রশাসন অনতিবিলম্বে গাছ ও বাঁশ সড়িয়ে, রাস্তাটি দখল মুক্ত করে, যাতায়াতের ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন বলে দাবি ভুক্ত ভোগিদের

Leave a Reply