শ্রীনগরে চালককে শ্বাসরোধ করে অটো নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় ছিনতাইকারী আটক

আরিফ হোসেনঃ দক্ষিন কেরাণীগঞ্জ থানার চুনকুটিয়া চৌরাস্তার দেলোয়ার হাজীর বাড়ির ভাড়াটিয়া সারোয়ার সরদারের ছেলে সিয়াম আহম্মেদ (১৬)। প্রতিদিনের ন্যায় গত মঙ্গলবার বিকাল ৪টার দিকে তার অটোরিক্সাটি নিয়ে কদমতলী বাসস্ট্যান্ডে এসে যাত্রীর জন্য অপেক্ষা করতে থাকে। এসময় যাত্রী সেজে ৩ জন কদমতলী থেকে হাঁসাড়া আসার জন্য ৪শ টাকায় অটোরিক্সাটি ভাড়া নেয়। সন্ধ্যার দিকে হাঁসাড়া এলাকায় আসলে তারা অটোরিক্সাটি নিয়ে কেসি রোডে প্রবেশ করে। কেসি রোডের দিশারী হাউজিংয়ের সামনে এসে যাত্রীবেশের ছিনতাইকারীরা সিয়ামের গলায় গাড়ির ব্রেকের তার পেচিয়ে শ^াসরোধ করে তাকে অটো থেকে ফেলে দেয়। ছিনতাইকারীরা পালিয়ে যাওয়ার সময় সিয়ামের চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে ব্যারিকেট দিয়ে আটোরিক্সাটি আটক করে ও আবু কালাম (৩০) নামে ১ ছিনতাইকারীকে ধরে ফেলে।

এসময় বাকী ২ ছিনতাইকারী পলিয়ে যায়। পরে পুলিশ এসে সিয়ামকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে এবং ছিনতাইকারীকে থানায় নিয়ে আসে। রাতে ছিনতাইকারী আবু কালামের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে সিংপাড়া এলাকা থেকে ফালান (৩০) নামে আরেক ছিনতাইকারীকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ফালান সিংপাড়া গ্রামের আইয়ূব আলীর ছেলে। অপরদিকে অবু কালাম বেশ কিছুদিন ধরে বেলতলী গ্রামের তার মামার বাড়িতে থাকতো। তার মায়ের নাম কানন বেগম।

পুলিশ জানায়, ছিনতাই কারী ফালান এলাকায় রাজমিস্ত্রি হিসাবে পরিচিত। আবু কালাম ঢাকার চক বাজার এলাকায় কুলির কাজ করে। তাদের কাজের আড়ালে ২ জনই ছিনতাই করে থাকে।

শ্রীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ হেদায়াতুল ইসলাম ভূঞা জানান, এই ঘটনায় শ্রীনগর থানায় ছিনতাইকারীদের বিরুদ্ধে দ্রুত বিচার আইনে মামলা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত ২ জন ছিনতাইয়ের ঘটনা স্বীকার করেছে। বাকী আসামী গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

Leave a Reply