কিশিদাই হচ্ছেন জাপানের পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী

রাহমান মনি: ফুমিও কিশিদা-ই হচ্ছেন জাপানের পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী । কিশিদা হবেন আধুনিক জাপানার ১০০তম প্রধানমন্ত্রী । আবে প্রশাসনের সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা (৬৪) জাপানের ক্ষমতাসীন জোটের অন্যতম প্রধান শরীক দল লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টিকে (এলডিপি) নেতৃত্ব দেয়ার জন্য চারমুখী দৌড়ে প্রথম দফায় জয়লাভ করেছেন । তিনিই হচ্ছেন ইয়োশিহিদে সুগার উত্তরসূরি । তার ই নেতৃত্বে আগামী নভেম্বর মাসে জাপানে একটি সাধারন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে ।

দলের ৩৮২ জন আইন প্রণেতা এবং এর ১১ লাখ সদস্যদের প্রথম দফার ভোটে চারজন প্রার্থীর কেউই সংখ্যাগরিষ্ঠতা না পাওয়ার পর প্রতিযোগিতাটি শেষ পর্যায়ে চলে যায়। আগামী ৪অক্টোবর থেকে শুরু হওয়া সংসদীয় অধিবেশনে ৬৪ বছর বয়সী কিশিদা আনুষ্ঠানিকভাবে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হবেন।

কিশিদা বর্তমানে ভ্যাক্সিন প্রদান সমন্বয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী তারো কোনো (৫৮)’র ১৭০ ভোট এর বিপরীতে ২৫৭ ভোট পেয়ে জিতেছেন । ইতোপূর্বে তারো কোনো পররাষ্ট্র ও প্রশাসনিক সংস্কারবিষয়ক মন্ত্রী এবং তার আগে প্রতিরক্ষামন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেছেন। তারো কোনো যুদ্ধবিরোধী নেতা হিসেবে বেশ প্রসিদ্ধ।

প্রথম রাউন্ডে কিশিদার পক্ষে আশাতিরিক্ত ফলাফল এসেছে, চারজন প্রতিযোগীর মধ্যে শীর্ষে উঠে এসেছে । নির্বাচনের আগে, তারো কোনো ব্যাপকভাবে প্রথম দফার ভোটের নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য সম্ভাব্য প্রার্থী হিসাবে বিবেচিত হয়েছিল।

একটি টোকিও হোটেলের একটি বলরুমে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।

কিশিদা নির্বাচনের পর মঞ্চে ওঠার সময় বরাবরের মতোই শান্ত ও দৃঢ়চেতা ছিলেন। মঞ্চে উঠে অভিবাদন শেষে কিশিদা উপস্থিত সকল আইনপ্রণেতাদের উদ্দেশে বলেন, “আমাদের দেশের গণতন্ত্র সংকটে আছে। মানুষ মনে করে যে রাজনীতিতে তাদের আওয়াজ শোনা যাচ্ছে না”।

তিনি জোর দিয়ে বলেন, আমি যে জিনিসটিতে ভাল আছি তা হল অন্য লোকের কথা শোনা । আমাদের জনগণ দেখবেন যে, আমাদের নেতা পরিবর্তন হয়েছে তাই তারা আমাদের সমর্থন দেবেন।

তিনি আরও বলেন, জাপান বর্তমানে কোভিড সংকট, বয়স্ক জনসংখ্যা, ইন্দো-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলকে মুক্ত এবং উন্মুক্ত রাখা সহ একাধিক চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি, এবং মানুষের জন্য নতুন পুঁজিবাদ তৈরি করা। আমাদেরকে এই সকল সমস্যা থেকে উত্রে যেতে হবে এবং আমরা পারবো । আমাদের পারতে হবে ।

rahmanmoni@gmail.com

Leave a Reply