শ্রীনগরে চোরের ছুরিকাঘাতে বৃদ্ধ আহত

শ্রীনগর উপজেলার বাঘড়ার রুদ্রপাড়া গ্রামে দুঃসাহসিক চুরির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় চোরের ছুরিকাঘাতে বৃদ্ধ আহত হয়েছেন। গত সোমবার গভীর রাতে এ ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহত অবস্থায় ভূক্তভোগী মো. ইউনুছ বেপারীকে (৭০) ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সে ওই গ্রামের মৃত নাছিরউদ্দিন বেপারীর পুত্র।

স্থানীয়রা জানায়, গভীর রাতে ওই বাড়ি থেকে ডাক চিৎকারের শব্দ শুনতে পাই। চোরেরা চুরি করার সময় বৃদ্ধ ইউনুছ বেপারী এক চোরকে জাপটে ধরে। এ সময় অন্য এক চোর চাইনিজ কুড়াল দিয়ে ইউনুছ বেপারীর পায়ে কোপ দিয়ে গুরুতর আহত করে মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে পালিয়ে যায়। গত এক মাসে বাঘড়া এলাকায় বেশ কয়েকটি চুরির ঘটনা ঘটেছে। ভূক্তভোগী বৃদ্ধ ইউনুছ বেপারী জানান, চোরের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে তার পায়ের রগ কেটে ও হাড় ভেঙে যায়।

অপর একটি সূত্র জানায়, গত এক মাসে বাঘড়া এলাকায় চোরের উপদ্রব অনেকাংশে বেড়ে গেছে। গত ৭ সেপ্টেম্বর রাতে বাঘড়া এলাকার খোরশেদ বেপারীর ঘরের তালা ভেঙ্গে চোরেরা অলংকারসহ বিভিন্ন কাপড় চোপর নিয়ে যায়।

গত ৫ সেপ্টেম্বর রাতে বাঘড়ার হানিফ তালুকদারের বাড়ির মেইন গেইট ভেঙে চোরের দল খাট, আলমারি, ফ্যান, বিদেশি কম্বল ও বেশ কিছু শাড়ি কাপড়সহ প্রায় আড়াই লাখ টাকার মালামাল নিয়ে যায়। এছাড়াও, গত ৩ সেপ্টেম্বর ওই এলাকার মনি পাড়ায় একটি বসতঘর থেকে চোরেরা একটি ফ্রিজ নিয়ে যায়। এসব চুরির ঘটনায় বেশিরভাগ সময়েই কোন অভিযোগ দায়ের হয়না।

এ ব্যাপারে শ্রীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. হেদায়াতুল ইসলাম ভূঞার কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এ ঘটনায় কোনো অভিযোগ পাইনি।

নিউজজি

Leave a Reply