পদ্মা সেতুতে বসল ল্যাম্পপোস্ট

স্বপ্নের পদ্মা বহুমুখী সেতুতে স্থাপন করা হয়েছে প্রথম ল্যাম্পপোস্ট। আর প্রথম দিনই ৮টি ল্যাম্পপোস্ট বৃহস্পতিবার দুপুর পৌনে একটায় সেতুর মুন্সীগঞ্জের মাওয়া প্রান্তের ৭/৮ ভায়াডাক্ট পিলারের মধ্যবর্তী স্থানে স্টিলের তৈরি ল্যাম্পপোস্টের মূল কাঠামো স্থাপন করা হয়েছে। পদ্মা সেতুর নির্বাহী প্রকৌশলী দেওয়ান মো. আবদুল কাদের এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, এসব কাঠামো চীন থেকে আনা হয়েছে। আজ থেকে প্রায় ১৫ দিন আগে চট্টগ্রাম সমুদ্র বন্দর থেকে সড়ক পথে পদ্মা সেতুর মাওয়া কন্সট্রাকশন ইয়ার্ডে ৯৫টি ল্যাম্পপোস্টের কাঠামো নিয়ে আসা হয়।

তিনি আরও জানান, সংযোগসহ সেতুতে মোট ৪১৬টি ল্যাম্পপোস্ট স্থাপন করা হবে। এরমধ্যে মূল সেতুতে ৩২৮টি এবং সংযোগ সেতুর বসানো ৮৮টি ল্যাম্পপোস্ট। সেতুর মাওয়া প্রান্তের সংযোগ যে পথ ধরে যানবাহন নামবে সে পথে বসানো হবে ২০টি ল্যাম্পপোস্ট। আর এ প্রান্তের যে পথে যানবাহন উঠবে সেখানে স্থাপন করা হবে ২২টি ল্যাম্পপোস্ট। অন্যদিকে, সেতুর শরীয়তপুরের জাজিরা প্রান্তে যানবাহন নামার পথে ২৪টি ও ওঠার পথে ২২টি ল্যাম্পপোস্ট বসানো হবে।

সেতুর এ নির্বাহী প্রকৌশলী আরও জানান, ল্যাম্পপোস্ট বসানোর জন্য ৪১৬টি লাইটিং ব্লিস্টার সেগমেন্ট ইতিমধ্যে তৈরি করা হয়েছে। এখন শুধু বসানো বাকি। সেতুতে সবকটি ল্যাম্পপোস্ট স্থাপনে কতদিন লাগবে? এ প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান, সব সময় একই গতিতে কাজ চলবে বলা মুশকিল। তবে প্রতিদিন ১০টি করে ল্যাম্পপোস্ট বসানো সম্ভব হলে দেড় থেকে দুই মাসে পুরো সেতুতে ল্যাম্পপোস্ট বসে যাবে।

চলতি মাসের ১০ তারিখ থেকে শুরু হয়েছে পদ্মা সেতুর সড়ক পথের পিচ ঢালাইয়ের কাজ। সেতুর সার্বিক অগ্রগতি ৮৭ এবং মূল সেতুর ৯৫ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে। আগামী ৩০ জুনের মধ্যে যানবাহন চলাচলের জন্য পদ্মা সেতুর খুলে দেওয়া হবে বলে গত ২৩ নভেম্বর মন্ত্রী পরিষদের সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম ঘোষণা দিয়েছেন।

গ্রামনগর বার্তা

Leave a Reply