মুক্তারপুরে জমি নিয়ে বিরোধ, প্রতিপক্ষের হামলায় আহত ৭

মুন্সীগঞ্জের পশ্চিম মুক্তারপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে সন্ত্রাসীদের হামলায় শ্রমিকসহ সাতজন গুরুতর আহত হয়েছেন। শনিবার (১৭ জুন) বেলা ২টার দিকে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার পশ্চিম মুক্তারপুর এলাকার চর সন্তোষপুর এলাকায় এই হামলার ঘটনা ঘটে।

আহতদের মধ্যে মো. মোফাজ্জল হোসেন (৬০) ও ফাহিম (১৮)-এর অবস্থা মারাত্মক। অপর আহতরা হলেন জাহাঙ্গীর মিস্ত্রি (৫৫), আব্দুল জলিল (৫০), কালু মিস্ত্রি (৬০), মো. ফয়সাল মিস্ত্রি (৪৫), মো. সোহেব (৩০)। তাদের মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

জানা গেছে, পশ্চিম মুক্তারপুরের সন্তোষপুর এলাকায় মো. তোফাজ্জল হোসেন তাদের পৈত্রিক সম্পত্তিতে ঘর নির্মাণকাজ করছিলেন। দুপুরের দিকে স্থানীয় পঞ্চসার ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য রহিম মেম্বার তার ছেলে রবিনসহ ১০/১৫ জনের সন্ত্রাসীদল নিয়ে সশস্ত্র অবস্থায় এসে ঘর নির্মাণকাজে বাধা দেন। ওই সময় সন্ত্রাসীদের বাধা দিলে সন্ত্রাসীরা শ্রমিকদের মারধর করে আহত করে। এ খবর পেয়ে তোফাজ্জল হোসেনের বড় ভাই মো. মোফাজ্জল হোসেন ও ভাতিজা ফাহিম এগিয়ে এলে সন্ত্রাসীরা লোহার রড, শাবল, এসএস পাইপ ও হাতুরি দিয়ে চাচা-ভাতিজাকে পিটিয়ে জখম করে।

এ বিষয়ে মো. তোফাজ্জল হোসেন বলেন, পশ্চিম মুক্তারপুরের সন্তোষপুর এলাকায় আমাদের পৈত্রিক জায়গায় বাড়ির কাজ করছিলাম। দুপুরের দিকে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে স্থানীয় ইউপি সদস্য রহিম মেম্বার ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে আমাদের কাজ বন্ধ করে দেয়। তাতে বাঁধা দিলে রহিম মেম্বার ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী আমাদের রড, শাবাল ও হাতুরি দিয়ে পিটিয়ে আহত করে।

ঘটনার বিষয়ে মুন্সীগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. তারিকুজ্জামান বলেন, এ ঘটনায় একটি অভিযোগ পেয়েছি। ঘটনাটি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

প্রতিদিনের সংবাদ

Leave a Reply