গজারিয়ায় ঢুকতে-বের হতে হাইওয়ে পুলিশের কড়া নজরদারি

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে গজারিয়া অংশে জামালদী বাস ষ্ট্যান্ড এলাকায় নারায়ণগঞ্জ জেলা হাইওয়ে সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার জিসানুল হক জিসানের নির্দেশে ও ভবেরচর হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. নাসিরের নেতৃত্বে চেকপোস্ট বসানো হয়েছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার চেকপোস্টকে উপেক্ষা করেই একশ্রেণির মানুষ চলাচলের চেষ্টা করেছে। গজারিয়া ঢুকতে ও বের হতে পুলিশের ছিল কড়া নজরদারি। প্রতিটি যানবাহন তল্লাশিসহ গাড়িতে থাকা ব্যক্তিদের প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হয়েছে। তবে এ আওতায় পণ্যবাহী কাভার্ড ভ্যান, ট্রাক ও অ্যাম্বুলেন্স ছিল না।

সরেজমিন দেখা যায়, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কটিতে অন্যদিনগুলোতে সবসময় যানবাহনের চাপ থাকে। কিন্তু বৃহস্পতিবার তা ছিল না। এ বিষয়ে ভবেরচর হাইওয়ে ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. নাসির বলেন, সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ট্রাক, পিকআপ, মাইক্রোবাস, প্রাইভেটকার, সিএনজি ও ব্যক্তিগত যানবাহনে যাত্রীবহন ঠেকাতে বিভিন্ন পয়েন্টে কঠোর অবস্থানে পুলিশ সদস্যরা দায়িত্ব পালন করছেন।

এদিকে নারায়ণগঞ্জ জেলা হাইওয়ে সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার জিসানুল হক জিসান জানান, অপ্রয়োজনীয় যানবাহন চলাচল বন্ধ করা হয়েছে। তবে কাঁচাবাজার, জরুরি চিকিৎসা, ব্যাংক বা কারখানার কথা বলে নানা লোক চলাচল করছে। তবে আমাদের এসব ব্যাপারে আরও কড়াকড়ি করতে হবে।

করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে কাঁচাবাজারও একটি নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত খোলা রেখে মানুষ চলাচল নিয়ন্ত্রণ করতে হবে। আমাদের আরও সচেতন হতে হবে।

মুন্সিগঞ্জ নিউজ

Leave a Reply