শ্রীনগরে বাড়ৈগাঁও সেতুর মুখ বন্ধ করে কৃষি জমি ভরাট চেষ্টা

শ্রীনগর-তন্তর সড়কের বাড়ৈগাঁও বাজারের সামনে সেতুর মুখ বন্ধ করে কৃষি জমি ভরাট চেষ্টা হচ্ছে। জমিটি ভরাট করা হলে সড়কে একটি সেতুর মুখ বন্ধ হয়ে পানি চলাচলে বাঁধাগ্রস্ত হয়ে পরার আশঙ্কা করা হচ্ছে। এতে সেতুর দক্ষিণ ও উত্তর চকের অসংখ্য ফসলী জমিতে জলাবদ্ধতার শঙ্কায় পড়েছেন স্থানীয়রা। বাড়ৈগাঁও এলাকার হাজী মো. আলতাফ নামে এক ব্যক্তি বিরুদ্ধে এই অভিযোগ উঠেছে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, বঙ্গবন্ধু এক্সপ্রেসওয়ের সংযোগ সড়ক শ্রীনগর-তন্তর সড়কের আটপাড়া ইউনিয়নের বাড়ৈগাঁও বাজারের সামান্য পশ্চিম দিকে নির্মিত সেতুর উত্তর পাশে স্ক্যাভেটর (ভেক্যু) মেশিন দিয়ে কৃষি জমি কেটে ভরাটের লক্ষ্যে পকেট করা হচ্ছে।

এলাকাবাসী জানায়, জমি ভরাট হলে সেতুর উত্তর পাশের মুখ পুরোটাই বন্ধ হয়ে যাবে। এতে দক্ষিণ চক ও উত্তর চকে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হবে। এতে শতশত একর কৃষি জমিতে ফসল উৎপাদণে হুমকি হয়ে দাড়াবে। পানি প্রবাহের স্থান বন্ধ না করার দাবিতে সংশ্লিষ্টদের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন তারা।

এ বিষয়ে হাজী মো. আলতাফ হোসেনের কাছে জানতে চাইলে তিনি দম্ভ করে বলেন, আমার ব্যক্তিগত জমি ভরাট করে বাড়ি নির্মাণ করছি। বাড়ির জন্য কি রাস্তা নির্মাণ করবো না। সেতুর মূখ বন্ধ হয়ে গেলে পানি নিস্কাশন বন্ধ হয়ে যাবে এমন প্রশ্নে জবাবে তিনি বলেন, আপনারা পানি দিয়ে কি করবেন? স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আমাকে ভরাটের জন্য পারমিশন দিয়েছেন।

আটপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান মো. ফজলুর রহমানের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, সে আমাকে বলেছেন তার একটি জমি ভরাট করে বাড়ি নির্মাণ করবেন। পানি চলাচলের জন্য রাস্তা রাখা জন্য বলা হয়েছে। কৃষি জমি বা জলাশয় ভরাটের বিষয়ে আপনি অনুমতি দিতে পারেন কি না এমন প্রশ্নের জবাবে এই ইউপি চেয়ারম্যান কোন সুদত্তোর দিতে পারেনি।

এ বিষয়ে স্থানীয় ভূমি উপ-সহকারী কর্মকর্তা কৃষ্ণ কুমার পাল জানান, বিষয়টি আমার জানা নেই। সরেজমিনে দেখে প্রয়োজনী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নিউজজি

Leave a Reply